শুক্রবার, ০৭ অক্টোবর ২০২২, ০৮:১৯ পূর্বাহ্ন
নোটিশঃ
“স্বাধীনবাংলা” টেলিভিশন (IP tv) পরিক্ষামূলক সম্প্রচার চলছে । “ স্বাধীনবাংলা টেলিভিশন” এ দেশের সকল জেলায় প্রতিনিধি নিযুক্ত করা হবে। আগ্রহী প্রার্থীগন সিভি পাঠান এই ঠিকানায়ঃ cv.shadhinbanglatv@gmail.com, Android Apps on Google Play থেকে ডাউনলোড করতে Shadhin Bangla Television লিখে সার্চ করুন ***

ডুমুরিয়ায় রাজনৈতিক দলের নেতাদের সঙ্গে অপরাজিতাদের মতবিনিময় অনুষ্ঠিত

ডুমুরিয়ায় রাজনৈতিক দলের নেতাদের সঙ্গে অপরাজিতদের মতবিনিময় অনুষ্ঠিত

রাশিদুজ্জামান সরদার,  ডুমুরিয়া (খুলনা) প্রতিনিধিঃ

রাজনৈতিক দলের নেতাদের সাথে অপরাজিতাদের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। ডুমুরিয়া উপজেলা অফিসার্স ক্লাবে আজ বুধবার (১৫ জুন) সকালে অনুষ্ঠিত সভায় সভাপতিত্ব করেন ডুমুরিয়া উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান শারমিন পারভীন রুমা। এ সময় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ডুমুরিয়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার শরীফ আসিফ রহমান।

বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, ডুমুরিয়া উপজেলা শাখার আওয়ামীযুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শেখ সুলতান আহমেদ, বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল বিএনপি নেতা শেখ মাহাবুবুর রহমান, ডুমুরিয়া উপজেলা জাতীয় পার্টির আহ্বায়ক আব্দুর সবুর সরদার, যুব মহিলা লীগের শিবু আক্তার, মহিলা আওয়ামী লীগ নেতা মো. সভাপতি শিলা রানী প্রমুখ।

ডুমুরিয়া উপজেলা ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি শেখ সেলিম আক্তার স্বপন, রুপান্তর জেন্ডার এইড, ট্যানিং অফিসার মোর্শেদা ‌ খাতুন দিলারা, সিপি বীর ডুমুরিয়া উপজেলা সভাপতি একচিত্র রঞ্জন গোলদার,পার্বতী ফজদার, আফরোজা খানম মিতা, নলিতা সরদার, সুস্মিতা গাইন, নিয়তি মন্ডল, শিল্পী গাইন, ইউপি সদস্য নার্গিস পারভীন, শিক্ষা বসাক, অপরাজিত ডুমুরিয়া উপজেলা শাখা অফিসার দীপঙ্কর মন্ডল প্রমুখ।

এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের বিভিন্ন ইউনিটের নেতৃবৃন্দ, মহিলা ইউপি সদস্য, রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব ও সাংবাদিকবৃন্দ।

বক্তারা বলেন, রূপান্তর ফাউন্ডেশন নারীর ক্ষমতায়ন ও নারীর আত্ম-সামাজিক উন্নয়নে যেভাবে কাজ করছে তা সত্যিই প্রশংসনীয়। এই প্রকল্পের মাধ্যমে নারীরা সরকারি বিভিন্ন দপ্তরের কার্যক্রম সম্পর্কে জানতে পেরেছেন। খোলা জনপ্রতিনিধিদের সঙ্গে মতবিনিময়ের সুযোগ রয়েছে। রাজনৈতিক দলগুলোতে নারীর অবস্থান তৈরি হচ্ছে যা নারীর অধিকার আদায়ে ভূমিকা রাখবে।

এ বিষয়ে বেশ কিছু উল্লেখযোগ্য পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। ১৯৯১ সালের সংসদ নির্বাচনের পর প্রথমবারের মতো নির্বাচন কমিশনের গণপ্রতিনিধিত্ব আদেশ অনুযায়ী দলীয় রাজনীতিতে সব কমিটি গঠনে নারীদের জন্য ৩০ শতাংশ আসন সংরক্ষণের ব্যবস্থা করা হয়েছে। এটি জাতীয় ও স্থানীয় রাজনীতিতে নারীদের অংশগ্রহণের একটি বড় সুযোগ তৈরি করে।

কিন্তু বাস্তবতা হলো, মূলধারার রাজনৈতিক দলগুলোতে জেলা, উপজেলা ও ইউনিয়ন পর্যায়ে নারীদের সভাপতি বা সম্পাদক নির্বাচিত হতে দেখা যায় না। এ বিষয়ে নারীদের করণীয় সম্পর্কে আলোচনা করা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এখন সময় এসেছে বিভিন্ন রাজনৈতিক দলে নারীদের চ্যালেঞ্জ শোনার এবং সে অনুযায়ী এগিয়ে যাওয়ার।

 

এসবিএন


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.


আমাদের ফেসবুক পেইজ